ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত হলো বাংলাদেশের আরও ২০ লাখ গ্রাহক

ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত হলো বাংলাদেশের আরও ২০ লাখ গ্রাহক

চলতি বছরের আগস্টে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ২০ লাখেরও বেশি বেড়েছে। যা পুর্বের সব রেকর্ডকে অতিক্রম করেছে। আজ রবিবার (২২সেপ্টেম্বর) প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রন কমিশন।বকেয়ার অর্থ নিয়ে দেশের শীর্ষ দুই মোবাইল অপারেটর গ্রামীণ ফোন ও রবির সঙ্গে গত জুলাই মাসে দ্বন্দ্ব বাঁধলে তাদের উপর কড়াকড়ি আরোপ করে বিটিআরসি। উভয় অপারেটরের উপর নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে নিষেধাজ্ঞা জারি করে নিয়ন্ত্রক সংস্থা। নতুন অফার ও প্যাকেজ চুক্তির উপরও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে বিটিআরসি।

গ্রামীণফোন ৩০ এবং রবির ১৫ শতাংশ ব্যান্ডউইথ কমিয়ে দেওয়া হয়। তবে সরকারি সংস্থানটির দেওয়া এতো চাপের মধ্যেও দিন দিন নতুন গ্রাহকের সংখ্যা বেড়েই চলছে।বিটিআরসি জানায়, চলতি বছরের আগস্ট মাসে সারাদেশে মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ১৯ লাখ ৫৯ হাজার। ব্রডব্যান্ড সংখ্যা বেড়েছে আরও ১ লাখ। এ নিয়ে বর্তমান দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা মোট ৯ কোটি ৮৬ লাখ। যা বিটিআরসির ইতিহাসে এটাই সর্বোচ্চ ইন্টারনেট সংযোগের সংখ্যা। দেশে সব থেকে বেশি মোবাইল ফোন ভিত্তিক ইন্টারনেট ব্যবহার করা হয়, প্রায় ৯ কোটি ২৪ লাখ। ওয়াইম্যাক্স ব্যাবহারকারী রয়েছে ৪০ হাজার। আইএসপি ও পিএসটিএন ব্যবহারকারী রয়েছে ৫৭ লাখ ৩৫ হাজার।

বিটিআরসি প্রতিবেদন অনুসারে, বর্তমান এ দেশে সক্রিয় মোবাইল সংযোগ আছে ১৬ কোটি ২৬ লাখ। আর সব থেকে বেশি সংযোগ প্রদানকারী গ্রামীণ ফোন। যার বর্তমান মোবাইল সংযোগ রয়েছে ৭ কোটি ৫৬ লাখ। এরপর ৪ কোটি ৭৮ লাখ, ৩ কোটি ৪৮ লাখ ও ৪৩ লাখ ৮৭ হাজার সংযোগ নিয়ে তালিকায় রয়েছে যথাক্রমে রবি, বাংলালিংক ও টেলিটক।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2019 bdsangbad71